পরামর্শকের অনুরোধে ২০০ শিক্ষার্থী একযোগে চোখ বন্ধ করল। তিনি বলেন, ‘এবার তোমরা প্রত্যেকের সবচেয়ে প্রিয় মানুষটির কথা ভাবো, তার মুখ কল্পনা করো, তার অভিব্যক্তির কথা মনে করো। কেউ চোখ খুললেই প্রমাণ হবে, সে তার ভালোবাসার মানুষের প্রতি অসম্মান করছে।’ এক মিনিট পার হয়ে যায় কেউ চোখ খোলে না। পরামর্শক বলে উঠলেন, ‘এবার তোমরা ভাবো, তোমার ভালোবাসার মানুষটি গাঁজা খাচ্ছে।’

এ কথা শোনার সঙ্গে সঙ্গে একযোগে সবাই চিৎকার করে বলে উঠল—‘না’।

 এবার পরামর্শক বললেন, ‘কল্পনায় ভালোবাসার মানুষের মাদক সেবনের কথাই তোমরা মেনে নিতে পারছ না। এখন তোমরা যদি কখনো মাদক সেবন করো, তাহলে তোমাদের যাঁরা ভালোবাসেন, তাঁদের কী কষ্ট হবে, একবার চিন্তা করো।’ মাদকের এই ভয়াবহতা বুঝতে পেরে একযোগে সব শিক্ষার্থী মাদককে না বলল। সেই সঙ্গে তারা মিথ্যা, মনখারাপ ও না বুঝে মুখস্থকেও না বলার শপথ নেয়।