বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন

৩. আড্ডার নামে অনেক সময় নষ্ট করে। প্রায়ই মিথ্যা কথা বলা। কথা ও কাজের গরমিল। ঘর থেকে গোপনে দামি জিনিসপত্র বিক্রি করা। দেরি করে বাসায় ফেরা। মিষ্টিজাতীয় খাবারের প্রতি অত্যধিক আসক্তি এবং ঘন ঘন চা খাওয়া। টাকা পয়সা না থাকলে বিভিন্নভাবে সংসারের শান্তি বিনষ্ট করা।

৪. ঘরের মেঝেতে ইনজেকশনের সিরিঞ্জ, খালি শিশি, পোড়ানো দেশলাই ইত্যাদির চিহ্ন পাওয়া যায়। ফোড়া, আলসার, খোসপাঁচড়া, চুলকানি হওয়া। বিভিন্ন অসামাজিক কাজে যুক্ত হওয়া। নৈতিক মূল্যবোধের অবক্ষয় ঘটা। সবদিক থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া।

অভিভাবক সচেতন হলে এসব লক্ষণ দেখে বোঝা যায় যে পরিবারের আদরের সদস্যটি মাদকে আসক্ত।

মাদকবিরোধী আন্দোলন থেকে আরও পড়ুন
মন্তব্য করুন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন