সামিট গ্রুপের সহযোগিতায় প্রথম আলো ট্রাস্টের উদ্যোগ ও ব্যবস্থাপনায় এসব দুর্গম এলাকায় ছয়টি স্কুল প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। গঙ্গাধর, দুধকুমোড় আর ব্রহ্মপুত্রের মোহনায় দুই যুগ আগে জেগে ওঠে এক নামহীন কুড়িগ্রামের দুর্গম এক চর। খবর থেকে খাবার, স্বাস্থ্য, শিক্ষা, পানি থেকে নিজস্ব পরিচয় প্রতিষ্ঠায় এই চরের মানুষের পাশে ছিল প্রথম আলো। । ২০০৫ সালে এলাকাবাসীর ভালোবাসা কৃতজ্ঞতায় নামহীন এই জনপদের নাম হয় “প্রথম আলো চর”।  ষোল থেকে শুরু হয়ে এখন সাড়ে চারশ পরিবারের বাস প্রথম আলো চরে। ২০০৯ সালে চরের শিশুদের জন্য যাত্রা শুরু করে ‘প্রথম আলো চর আলোর পাঠশালা’। প্রথম আলো চর আলোর পাঠশালা ছাড়াও রাজশাহীতে ২টি, ভোলায় ১টি, নওগাঁয় ১টি ও টেকনাফে ১টি এবং কুড়িগ্রামের প্রথম আলো চরে ১টি করে মোট ৬টি স্কুল পরিচালনা করছে প্রথম আলো ট্রাস্ট। ছয়টি স্কুলে মোট ১ হাজার ৩০০ জন শিক্ষার্থী পড়াশোনা করছে।